রাজ্য বিভাগে ফিরে যান

UP Crime: যোগীরাজ্যের বাদায়ুন গ্যাং বাংলায় একের পর এক সোনার দোকান লুট করছে, ঘুম উড়েছে পুলিশের

March 2, 2024 | < 1 min read

নিউজ ডেস্ক, দৃষ্টিভঙ্গি: সম্প্রতি মালদহ, মুর্শিদাবাদ, কাটোয়ায় পরপর কয়েকটি সোনার দোকানে লুটপাটের ঘটনা ঘটে। বিপুল পরিমাণ সোনার গয়না নিয়ে চম্পট দেয় দুষ্কৃতীরা। পুলিস তদন্তে নেমে জানতে পারে, এই গ্যাংটি উত্তরপ্রদেশের বদায়ুন জেলার। কয়েকজনকে গ্রেপ্তারের পর জিজ্ঞাসাবাদে জেলা পুলিসের অফিসাররা যা জানতে পারছেন, তা রীতিমতো চাঞ্চল্যকর! তাঁরা জেনেছেন, এই গ্যাংয়ের সদস্যদের এখন টার্গেট পশ্চিমবঙ্গ। এখানে এনকাউন্টার করে দেওয়া হয় না কোনও অভিযুক্তকে। তাই তারা বাংলাকে টার্গেট করেছে।

গ্যাংয়ের সদস্যরা এখানে আসার পর নাম-পরিচয় ভাঁড়িয়ে বাড়ি ভাড়া নিচ্ছে। তবে যে এলাকায় ডেরা বাঁধছে, সেখানে অপরাধ করছে না। তার থেকে ৪০-৫০ কিলোমিটার দূরে গিয়ে অপারেশন চালাচ্ছে তারা। তার আগে বাসন বিক্রেতা, ফলওয়ালা, সব্জি বিক্রেতা সেজে এলাকার সুবিধা-অসুবিধা, ঢোকা-বেরনোর রাস্তা জেনেবুঝে নিচ্ছে। এলাকায় ক’টি সোনার দোকান আছে, তাও দেখে নিচ্ছে। রেইকি করার পর অপারেশন চালাচ্ছে। কোনও একটি জায়গায় থেকে অন্তত দু’টি অপারেশেন সফল করার পর অন্যত্র চলে যাচ্ছে তারা।

একবার লুটপাট চালানোর পর দ্বিতীয়বারেই নতুন মুখ ব্যবহার করছে। উদ্দেশ্য, তদন্তকারীরা যেন না বুঝতে পারেন যে পরপর দু’টি ঘটনায় একই গ্যাং জড়িত। পুলিস আরও জানতে পেরেছেন, লুটপাটের সময় বদায়ুন গ্যাং কোনও গাড়ি ব্যবহার করছে না। ট্রেনে করে পৌঁছে যাচ্ছে নির্ধারিত জায়গায়। প্রত্যেকে থাকছে খালি পায়ে। সঙ্গে রাখছে লাঠি , বন্দুক ও গ্যাস কাটার। বাধা এলেই এলোপাথাড়ি গুলি চালায় তারা। এই বদায়ুন গ্যাংই ঘুম কেড়েছে রাজ্য পুলিসের। গত এক বছরে রাজ্যের ১১টি সোনার দোকান লুট করেছে তারা।

TwitterFacebookWhatsAppEmailShare

#robbery, #Badaun gang, #Jwellery shops, #West Bengal, #Uttar Pradesh

আরো দেখুন